• আপডেট টাইম : 11/02/2022 02:39 AM
  • 358 বার পঠিত
  • অর্ণব সরকার
  • sramikawaz.com

বাংলাদেশ ক্ষেতমজুর সমিতির সাবেক কেন্দ্রীয় নেতা, সিপিবি প্রেসিডিয়াম সদস্য, গণমানুষের নেতা,
কমরেড মিহির ঘোষসহ মিথ্যা মামলায় কারাগারে বন্দী নেতাকর্মীদের মুক্তি দাবি করেছেন ক্ষেতমজুরসমিতির নেতৃবৃন্দ। আজ ১০ ফেব্রয়ারি বিকালে পল্টন মোড়ে বাংলাদেশ ক্ষেতমজুর সমিতি আয়োজিতবিক্ষোভ সমাবেশে নেতৃবৃন্দ আরও বলেন, রকারদলীয় লোকজন গাইবান্ধার সদর উপজেলার গিদারীইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দলীয় কার্যালয় ভাংচুর ও বঙ্গবন্ধু-প্রধানমন্ত্রীর ছবি অবমাননারনামে দেশদ্রোহ ও ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মিহির ঘোষসহ নেতাকর্মীদের নামে মিথ্যা মামলা দায়েরকরে। কিন্তু ঘটনার সময় কমরেড মিহির ঘোষ, গিদারী ইউনিয়ন নির্বাচনের চেয়ারম্যান প্রার্থী সাদেকুল
ইসলাম মাষ্টারসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ ঐ স্থানে ছিলেন না। কারচুপি করে নির্বাচনে জিতে আসা ও মিহিরঘোষ, সাদেকুল মাষ্টারের কণ্ঠ রোধ করার জন্যই মূলতঃ এ মিথ্যা মামলা দায়ের করা হয়। নেতৃবৃন্দআরও বলেন, এলাকার সাধারণ মানুষের অধিকার আদায়ের সংগ্রামে মিহির ঘোষ সব সময় সোচ্চারছিলেন। সমাবেশে নেতৃবৃন্দ বলেন, কারাগারে বন্দী করে, মিথ্যা মামলা দিয়ে অন্যায়ের বিরুদ্ধে
নেতাকর্মীদের কণ্ঠ রোধ করা যাবে না। নেতৃবৃন্দ অবিলম্বে সকল নেতাকর্মীদের মুক্তি দাবি করেন।
ক্ষেতমজুর সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ডা. ফজলুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সমাবেশে বক্তব্য
রাখেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট আনোয়ার হোসেন রেজা, নির্বাহী কমিটির সদস্য
মোতালেব হোসেন, কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য কল্লোল বণিক। সংহতি বক্তব্য রাখেন সিপিবি কেন্দ্রীয়কমিটির অন্যতম সম্পাদক রুহিন হোসেন প্রিন্স, কৃষক সমিতির কেন্দ্রীয় নেতা লাকি আক্তার, ছাত্রইউনিয়নের সভাপতি মো. ফয়েজ উল্লাহ। সমাবেশ পরিচালনা করেন ক্ষেতমজুর সমিতির সহ সাধারণসম্পাদক অর্ণব সরকার বাপ্পী। সমাবেশ থেকে একই দাবিতে আগামীকাল বিকাল ৫টায় পল্টন মোড়েপ্রগতিশীল গণসংগঠনের ব্যানারে বিক্ষোভ ও মশাল মিছিল ও ১৩ রবিবার দেশব্যাপী বিক্ষোভ কর্মসূচিসফল করার জন্য সকলের প্রতি উদাত্ত আহবান জানানো হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...