• আপডেট টাইম : 30/06/2022 10:02 AM
  • 247 বার পঠিত
  • মোঃ কামরুজ্জামান
  • sramikawaz.com

গাজীপুরে এক নারী শ্রমিক সংবাদ মাধ্যমে বক্তব্য দেওয়ায় হেনস্থার শিকার হয়ছেন তার স্বামী। একই কারখানায় চাকরি করায় তার স্বামীকে আটকে রেখে চাকরিচ্যুত করার চেষ্টাও চালিয়েছে ওই কারখানা কর্তৃপক্ষ।

২৪ জুন  শুক্রবার এ বিষয়ে গাজীপুর মেট্রো এলাকার বাসন থানায় সাধারণ ডায়েরী করেছেন মাল্টিটেক্স নিট কম্পোজিট লিমিটেড পোশাক কারখানার সুইং অপারেটর লাবিব।

আগের দিন বৃহস্পতিবার দুপুর থেকে রাত ১০ টা পর্যন্ত কারখানায় লাবিবকে আটকে রেখেছিল কারখানা কর্তৃপক্ষ। পরে শিল্প পুলিশের সাথে যোগাযোগ করলে তারা গিয়ে লাবিবকে কারখানা থেকে উদ্ধার করে বলে জানিয়েছে লাবিব।

এর আগে গত ২২ জুন শ্রমিক আওয়াজ পত্রিকায় ‘মাতৃত্বকালীন ছুটির পাওনাদি চাইলে হারাতে হয় চাকরি’  শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশিত হয়। সে সংবাদে লাবিবের স্ত্রী কুলসুমের বক্তব্য প্রকাশিত হয়। মাতৃত্বকালীন ছুটি ও সুবিধা না পেয়ে এর আগে কুলসুমও একই কারখানা থেকে চাকরিচ্যুত হয়েছিলেন। কুলসুম বলেন, আমার বক্তব্য খবর প্রকাশ হওয়ার পরেই আমার স্বামী লাবিবকে কারখানা থেকে বের করে দিতে উঠেপড়ে লাগে কারখানার এডমিন ম্যানেজার মোঃ আনোয়ার হোসেন।

 লাবিব বেপারী বলেন, আমার কার্ড রেখে আমাকে বের করে দিয়েছে। আমার কাছ থেকে রিজাইনের পেপার ও সাদা কাগজে স্বাক্ষর রাখতে চেয়েছিল। আমি স্বাক্ষর দিতে চাইনি তাই আমাকে দুপুর থেকে কারখানায় আটকে রেখে। আমাকে শিল্প পুলিশ এসে কারখানা থেকে বের করে নিয়ে আসে।

এ বিষয়ে লাবিবের স্ত্রী কুলসুম বলেন, কারখানাটিতে প্রায় ১ বছর ধরে চাকরি করেছি। চাকরি করা অবস্থায় সন্তান সম্ব্যবা হলে কারখানা কর্তৃপক্ষ রিজাইন সহ সাদা কাগজে সাক্ষর রেখে কোন পাওনাদি না দিয়ে ই কারখানা থেকে বের করে দেয় আমাকে।

 

এ ব্যাপারে কারখানাটির এডমিন ম্যানেজার মো: আনোয়ার হোসেনের মোবাইল ফোনে কল দিলে তিনি কল রিসিভ করেন। উক্ত প্রসঙ্গ নিয়ে প্রশ্ন করার সাথেসাথেই 'আমি মিটিং এ আছি, একটু পর কল দিচ্ছি। বলে সংযোগ কেটে দেন তিনি।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...