• আপডেট টাইম : 29/06/2022 03:13 PM
  • 120 বার পঠিত
  • আওয়াজ প্রতিবেদক,, কুষ্টিয়া
  • sramikawaz.com

 

¯^াধীনতার দীর্ঘ ৫০ বছর পার হলেও কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে নির্মাণ হয়নি ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশন। বিভিন্ন সময়ে নির্বাচিত স্থানীয় জনপ্রতিনিধিগণ দৌলতপুরে ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশন নির্মাণের উদ্যোগ নিলেও তা আলোর মুখ দেখেনি। অবশেষে উপজেলার সদর ইউনিয়নের চুয়ামল্লিকপাড়া গ্রামের সহৃদয়বান ও সমাজসেবী হাসিনা বানু ৮২শতক জমি ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশনের জন্য দান করেছেন। দৌলতপুর হাসপাতাল রোড সংলগ্ন চুয়ামল্লিকপাড়ায় ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশনের জন্য তিনি এ জমি দান করেন।
২৮ জুন মঙ্গলবার দুপুরে তাঁর দানকরা এ জমি রেজিষ্ট্রেশন সম্পন্ন হয়েছে। জমি রেজিষ্ট্রেশনের পর বিকেলে ওই জমিতে খুটি পুঁতে ভিত গাড়া হয়েছে। ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশনের খুঁটি গেড়ে ভিত গাড়ার সময় উপস্থিত ছিলেন, দৌলতপুর উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাড. এজাজ আহমেদ মামুন, দৌলতপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. আব্দুল জব্বার, ফায়ার সার্ভিসের ডিডি মো. সালেহ উদ্দিন, দৌলতপুর সহকারী কমিশনার (ভূমি) আফরোজ শাহীন খসরু, দৌলতপুর কৃষি কর্মকর্তা মো. নুরুল ইসলাম, কুষ্টিয়া ফায়ার সার্ভিসের সহকারী পরিচাল মো. জানে আলম, ডা. গোলাম জাকারিয়া চাঁন্দু ও জমিদাতা সমাজসেবী হাসিনা বানু। এসময় স্থানীয় সুধীজনও উপস্থিত থেকে ফায়ার সার্ভিসের ভিত গাড়ায় সহযোগিতা করেন।
উল্লেখ্য, ডা. গোলাম জাকারিয়া চাঁন্দু’র নিরলস পরিশ্রম ও দৌলতপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. আব্দুল জব্বারের আন্তরিক প্রচেষ্টায় এবং উপজেল চেয়াম্যানের অফিস সহকারী মো. ওসমান আলীর ¯ে^চ্ছাশ্রমে অবশেষে দৌলতপুরে ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশন আলোর মুখ দেখতে যাচ্ছে। দৌলতপুরে ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশন নির্মিত হওয়ায় দৌলতপুর বাসী তাঁদের প্রতি চরম কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...